প্রেস বিজ্ঞপ্তি:

কক্সবাজার জেলার খুরুস্কুল গ্রামনিবাসী অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তা শ্রী নির্মল কান্তি চক্রবর্ত্তী এবং অবসরপ্রাপ্ত সরকারি স্কুল শিক্ষিকা শ্রীমতি শেফালি ভট্টাচার্য এর একমাত্র পুত্র শ্রী অলক চক্রবর্ত্তী বিগত ২৯ জুন, ২০২২ তারিখে ত্রিপুরা বিশ্ববিদ্যালয় (সেন্ট্রাল বিশ্ববিদ্যালয়) এর বিজ্ঞপ্তি নং- PC/Ph.D./0574/2022 অনুসারে ইংরেজিতে ডক্টর অফ ফিলোসফি (পি.এইচ.ডি.) উপাধিতে ভূষিত হয়েছেন।

তাঁর গবেষণার শিরোনাম ছিল “ইংলিশ লোনওয়ার্ড ফোনোলজি ইন চিটাগনিয়ান বাংলা: অ্যান অপটিমালিটি থিওরেটিক অ্যানালাইসিস”। তাঁর গবেষণা তত্ত্বাবধায়ক ছিলেন ত্রিপুরা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের প্রথিতযশা অধ্যাপক এবং কলা ও বাণিজ্য অনুষদের ডিন, প্রফেসর শ্যামল দাস। গবেষণাকালীন শ্রী চক্রবর্ত্তী বিভিন্ন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সেমিনারে গবেষণাপত্র উপস্থাপন করেন এবং বিভিন্ন স্বনামধন্য জাতীয় ও আন্তর্জাতিক জার্নালে গবেষণামূলক বিভিন্ন নিবন্ধ লেখেন। বর্তমানে তিনি কক্সবাজার সরকারী কলেজের ইংরেজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এবং বিভাগীয় প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

এই কৃতিত্বময় সাফল্যের জন্য তাঁর সহধর্মিনী শ্রীমতি ক্যামেলিয়া চক্রবর্ত্তী, পুত্রসন্তান আদিত্য জ্যোতি চক্রবর্ত্তী, কন্যাসন্তান শুচিস্মিতা চক্রবর্ত্তী, বড় বোন শ্রীমতি জবা চক্রবর্ত্তী, জামাইবাবু শ্রী সমীর ভট্টাচার্য, শ্বশুর স্বর্গীয় অমিয় রঞ্জন চক্রবর্ত্তী, শাশুড়ী শ্রীমতি লীলা প্রভা ভট্টাচার্য, শ্যালকদ্বয় শ্রী চিন্ময় চক্রবর্ত্তী ও শ্রী তন্ময় চক্রবর্ত্তী, কাকা-কাকীমা, পিসেমশাই-পিসি, মামা-মামী ও মেসো-মাসী, ও কাজিনরাসহ অন্যান্য আত্মীয়-স্বজন, সকল সহকর্মী, বন্ধু-বান্ধবগণ সকলেই আনন্দিত ও গর্বিত। শ্রী চক্রবর্ত্তী ত্রিপুরা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় ভিসি ও গবেষণা তত্ত্বাবধায়ক অধ্যাপক শ্যামল দাস সহ ইংরেজি বিভাগের সকল শিক্ষক ও কর্মচারীদের আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

 
  
%d bloggers like this: