মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

কক্সবাজারের ঐতিহ্যবাহী ডিসি সাহেবের ২ দিন ব্যাপী বলীর পর্দা উঠেছে। শুক্রবার ৬ মে বিকেলে কক্সবাজারের বীর শ্রেষ্ঠ রুহুল আমিন স্টেডিয়ামে বলী খেলার উদ্বোধন করেন কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো: মামুনুর রশীদ। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার-৩ (সদর-রামু-ঈদগাহ) আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল। বেলুন উড়িয়ে উদ্বোধনের পর খেলায় অংশ নেওয়া বলীদের সাথে পরিচিত হন অতিথিরা।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে কক্সবাজারের পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান পিপিএম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ জাহিদ ইকবাল, বলী খেলার স্পন্সর প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন এর সিনিয়র এক্সিকিউটিভ অফিসার স্পোর্টস এন্ড গেমস এফ. এম ইকবাল বিন আনোয়ার, বলী খেলা উপ কমিটির সদস্য সচিব আলী রেজা তসলিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। বলী খেলার পাশাপাশি স্টেডিয়ামের চতুর্পাশে বৈশাখী মেলাও শুরু হয়েছে। শনিবার বিকেলে পুরস্কার বিতরণের মাধ্যমে বলী খেলা সমাপ্ত হবে।

কক্সবাজারের ইতিহাস, ঐতিহ্যের এক অনন্য অংশ ডিসি সাহেবের বলী খেলা।১৯৫৬ সালে কক্সবাজার মহকুমা থাকাবস্থায় “এসডিও সাহেবের বলী খেলা” নামে এ খেলার প্রবর্তন হয়। ১৯৮৪ সালে কক্সবাজার জেলায় রুপান্তর হওয়ার পর “এসডিও সাহেবের বলী খেলা” থেকে “ডিসি সাহেবের বলী খেলা” নামকরণ করা হয়। এ বছরের বলী খেলা ৬৭ তম আসর।

এ বছর প্রথম দিন শুক্রবারে প্রায় ৩০০ জন বলী খেলায় অংশগ্রহণের জন্য রেজিষ্ট্রেশন করেছেন বলে জানান, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মোঃ জসিম উদ্দিন। এবছর বলী খেলার অন্যতম আকর্ষন হলো জাতীয় কুস্তি টিমের ২ জন যুবতী নারী খেলোয়াড় বলী খেলায় অংশ নিচ্ছে। এছাড়া চট্টগ্রামের জব্বারের বলী খেলায় চ্যাম্পিয়ান হওয়া চকরিয়ার তারেকুর রহমান জীবন বলীও খেলায় অংশ নিচ্ছেন।

 
  
%d bloggers like this: