বার্তা পরিবেশক:
কক্সবাজার শহরের উত্তর নুনিয়ারছড়ায় গভীর রাতে ভাড়াটে লোকজন নিয়ে ৪০টির বেশি পরিবারের বসবাস করা স্বত্ত¡ দখলীয় জমি দখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় হামলায় ভুক্তভোগীদের কয়েকজন আহত হয়েছে। মঙ্গলবার রাত দেড়টা থেকে সাড়ে তিনটা পর্যন্ত এই ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগী গংয়ের রহিমা খাতুন ও কায়সার আবেদীন জানান, শহরের উত্তর নুনিয়ারছড়া কবরস্থানের পেছনে প্রায় ৬ কানি জমির মালিক আবুল মজিদ গং। কিন্তু গোপনে অনৈতিকভাবে জমিগুলো বিএস খতিয়ান সৃজন করে ফেলে খলিল মাস্টার গং। এর মধ্যে বিএস সংশোধনী মামলা দায়ের করে আবদুল মজিদ গং। মামলাটি আদালতে বিচারাধীন রয়েছে। শুরু থেকে এখন পর্যন্ত জমিতে আবদুল মজিদ গংয়ের ওয়ারিশরা স্বত্ত¡ দখলীয় হয়ে বাড়িঘর নির্মাণ করে বসবাস করে আসছে।

কিন্তু এর মধ্যে বিমান বন্দরের জন্য জমিগুলো অধিগ্রহণের আওতায় পড়ে। এতে লোভ বেড়ে যায় খলিল মাস্টার গংয়ের। তাই মামলা চলমান থাকলেও জমির দখল দেখিয়ে অবৈধভাবে টাকা তুলে নেয়ার জন্য উঠেপড়ে লেখেছে খলিল মাস্টার গং। তার অংশ হিসেবে মঙ্গলবার রাতে হিমু, হুমায়ুন, রাসেল, বাবুল, সোহাগ, মুমিন, ও সিরাজের নেতৃত্বে ৪০/৫০ জন মানুষ জমিটি দখলের জন্য সশস্ত্র হামলা চালায়। তারা দীর্ঘদিন দুই ঘন্টা দখলের চেষ্টা করে। কিন্তু ৯৯৯ কল দিলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় হামলাকারীরা ভুক্তভোগীদের কয়েকজনকে মারধরও করেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এই ঘটনায় স্থানীয় নারী কাউন্সিলর প্রভাব বিস্তার করেছে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগীরা। তবে তিনি অস্বীকার করেছেন।

ভুক্তভোগীরা জানান, প্রতিপক্ষ ভুয়া খতিয়ান সৃজন করে অর্ধশত বছরের জমিটি জবর দখলের চেষ্টা করছেন। মূলত তারা গায়ের জোর আর ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে জমি দখলের অপচেষ্টা করছে।

এ ব্যাপারে ভুক্তভোগীরা প্রশাসনের উর্ধ্বতন মহলের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।

 
  
%d bloggers like this: