সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

স্থানীয় বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা কোস্ট ফাউন্ডেশন, দাতা সংস্থা মাল্টিজার ইন্টারন্যশনাল-জার্মানির অর্থায়নে ২৮ মার্চ উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে ‘কমিউনিটি মোবিলাইজেশন’ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।
এ কমিউনিটি মোবিলাইজেশন ওয়ার্কশপ এর মাধ্যমে এলাকার স্থানীয় জনগণ ও ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য এবং সরকারি কর্মকর্তাদের উপস্থিতির মাধ্যমে এলাকার স্থানীয় চিহ্নিত সমস্যাগুলি আলোচনার মাধ্যমে সমাধানের বিষয়ে আলোচনা করা হয়।
পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম. গফুর উদ্দিন চৌধুরী এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা শিক্ষা অফিসার গুলশান আরা।
তিনি বলেন- ‘শিক্ষা প্রত্যেক শিশুর মৌলিক অধিকার। এটা খুবই দুঃখ জনক যে পুটিবনিয়া এলাকার চার কিলোমিটারের মধ্যে কোনো প্রাথমিক বিদ্যালয় নাই’।
তিনি আরো বলেন, ‘আমি উধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনার মাধ্যমে পুটিবনিয়ায় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপনের ব্যবস্থা করবো। তবে এটার জন্য কিছুদিন সময় লাগবে এবং আমি নিজে পরিদর্শনে যাব।’
সরকারিভাবে চালু করার পূর্ব পর্যন্ত স্কুলটি কোনো বেসরকারি সংস্থা কর্তৃক পরিচালনা করার ব্যবস্থার বিষয়ে চেষ্টা করবেন বলে জানান প্রধান অতিথি।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন উখিয়া উপজেলা পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের ব্যবস্থাপক আব্দুল করিম, উপজেলা উপ-সহকারী প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা আবুল কাশেম, উপজেলা উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাহজাহান, সুজন সভাপতি নুর মোহাম্মদ সিকদার, অনলাইন প্রেস ক্লাবের সভাপতি শফিক আজাদ, কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষিকা রিতা বালা, পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের ৫নং ওয়ার্ডের সদস্য মুফিদুল আলম সিকদার।
এছাড়া ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যবৃন্দ এবং কোস্ট ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন
উক্ত অনুষ্ঠানের মূল উদ্দেশ্য হলো- স্থানীয় জনসাধারণের দ্বারা চিহ্নিত সমস্যা সমূহের মধ্য থেকে প্রধান সমস্যাসমূহ চিহ্নিত করার পাশাপাশি সমস্যা সম্পর্কে অংশীজনদের/স্টেকহোল্ডারের সাথে শেয়ার করা,কর্মকৌশল আলোচনা ও মতামত নেয়া এবং সমস্যা সমাধানের উপায় বের করা। উক্ত অনুষ্ঠানে তিনটি সমস্যা নিয়ে আলোচনা করা হয়- পন্ডিত পাড়ায় বর্ষাকালে জলাবদ্ধতা দূরীকরণ এর জন্য পাশের খালে বেড়িবাঁধ নির্মাণ ও খাল খনন বা সংস্কারকরণ, পুটিবুনিয়ায় প্রবেশ পথ-শফিউল্লাহ কাটা থেকে পুটিবুনিয়ার শেষ মাথা পর্যন্ত রাস্তার মেরামত বা সংস্কারকরণ এবং পুটিবুনিয়ায় অবস্থিত বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়টি সংস্কারকপূর্বক পূণ-চালুকরন।
পন্ডিতপাড়ার অধিবাসী নিলুফা ইয়াসমিন বলেন- বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে যাওয়ার কারণে বর্ষাকালে নদীর পানি এলাকায় প্রবেশ করে, ফলে আশারপাড়া এবং পন্ডিতপাড়ার প্রায় পুরো এলাকা পানিতে ডুবে যায়। ফলে এলাকার মানুষের ফসলী জমি ও গবাদী প্রাণীর ক্ষতি হয়, মানুষের দৈনন্দিন চলাচলে ও অর্থনৈতিক কাজে ব্যাপক ক্ষতি হয়ে যায়। পুটিবনিয়ার অধিবাসী হামিদা আক্তার বলেন- পুটিবনিয়ায় প্রবেশ মুখে যে রাস্তাটি রয়েছে এটি খুব সরু এবং কাঁচা মাটির, যা বর্ষাকালে চলাচলের অযোগ্য। এখানে ছোট-বড় কোন প্রকার গাড়ি চলাচলের সুযোগ নেই। ফলে স্থানীয় জনসাধারণ অসুস্থ হলে রাস্তার অভাবে চিকিৎসা পেতে দেরি হয়, প্রসূতি মায়েদের হাসপাতালে নিতে সমস্যা হয়। পরিবহনের অসুবিধার কারণে, এলাকায় উৎপাদিত পণ্য বাজারে নিতে পারে না। ফলে তারা পণ্যের ন্যায্য মূল্য পায় না। বর্ষাকালে চলাচলের পথ কর্দমাক্ত হয়ে যায়। তারা দাবি করেন-তাদের চলাচলের জন্য পুটিবনিয়ায় প্রবেশ মুখের রাস্তাটি সংস্কার করা হোক।
রোকেয়া আক্তার বলেন- পুটিবুনিয়ায় অবস্থিত বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়টি সংস্কার এখন সময়ের দাবি।
পালংখালী ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার মুফিদুল আলম সিকদার বলেন- ‘বিদ্যালয়টি বন্ধ থাকার কারণে পুটিবনিয়া এলাকার স্কুল পড়ুয়া ছাত্র-ছাত্রীদের শিক্ষা গ্রহণের ক্ষেত্রে ব্যাপক ক্ষতিসাধন হচ্ছে। অন্যান্য বিদ্যালয় গুলো পুটিবনিয়া এলাকা থেকে অনেক দূরে হওয়ায় স্কুলে যাওয়ার সময় কোমলমতি শিশু ছাত্র-ছাত্রীরা সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়। এছাড়াও বেড়িবাঁধ ও রাস্তা নির্মাণের মাধ্যমে তিনি এলাকার মানুষের সমস্যা সমাধানের জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।”
সভাপতির বক্তব্যে পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম. গফুর উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘স্থানীয় উন্নয়নের পূর্বশর্ত হলো স্থানীয়দের মধ্যে সচেতনতা তৈরি করা। পাশাপাশি, নারীরা সচেতন হলেই স্থায়ী উন্নয়ন সম্ভব।
তিনি কোস্ট ফাউন্ডেশনকে অনুরোধ করেন নারীদেরকে বিভিন্ন প্রকার হস্তশিল্প প্রশিক্ষণসহ অন্যান্য দক্ষতা উন্নয়নমূলক প্রশিক্ষণ দেয়ার জন্য। তিনি চিহ্নিত সমস্যাসমূহের সর্বোচ্চ চেষ্টা করবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন এবং ইউনিয়ন পরিষদের সকল সদস্যের সহযোগিতা কামনা করেন।”
শুরুতে প্রকল্পের কার্যক্রম এবং কমিউনিটি মোবিলাইজেশন বিষয়ের উপর প্রেজেন্টেশন প্রদান করেন প্রকল্প ব্যাবস্থাপক তাহরিমা আফরোজ টুম্পা।
অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন কোস্ট ফাউন্ডেশনের কর্মী মো. সাইফুল ইসলাম।

 
  
%d bloggers like this: