মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

কক্সবাজার শহরের কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ সড়কের ক্লিনিক্যাল ল্যাবরটরী নতুন শেভরন ভবনের সত্ত্বাধিকারী, কক্সবাজার সদর উপজেলার খরুস্কুল ফকিরা পাড়া নিবাসী, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী হাজী আবু তাহেরের সহধর্মিণী লায়লা বেগম (৫৯) আর নেই। রোববার ২০ মার্চ সকাল ৭ টা ১৫ মিনিটের দিকে ঢাকার গুলশানস্থ ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি–রাজেউন)।

মরহুমার জামাতা, ইউনিয়ন ব্যাংক উখিয়া শাখার ব্যবস্থাপক এম. জাহেদ উল্লাহ জাহেদ সিবিএন-কে এ তথ্য জানিয়েছেন।

মরহুমা লায়লা বেগম বিভিন্ন জটিল রোগে আক্রান্ত ছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি স্বামী, ৪ পুত্র, ৪ কন্যা সন্তান, নাতি-নাতনি সহ অসংখ্য আত্মীয় স্বজন রেখে যান।

মরহুমা লায়লা বেগম খুরুস্কুল ইউনিয়ন পরিষদের ২ বারের সাবেক চেয়ারম্যান আমানুল হক আমান, মরহুম আবু সুলতান নাগু কোম্পানির ভাবী এবং মৃত হাজী কবির আহমদ, মৃত সোনা মেহের এর কন্যা। লায়লা বেগম এর মৃত্যুর খবরে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। খুরুস্কুল উচ্চ বিদ্যালয় সহ খুরুস্কুলে বিভিন্ন শিক্ষা, ধর্মীয় ও কল্যানকর প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠায় মরহুমা লায়লা বেগম এর অনেক অবদান রয়েছে।

সোমবার ২১ মার্চ সকাল ১০ টায় খুরুস্কুল ইউনিয়ন পরিষদ মাঠে মরহুমা লায়লা বেগম এর নামাজে জানাজা শেষে খুরুস্কুল ফকির পাড়া পারিবারিক কবরস্থান তাকে দাফন করা হবে বলে মরহুমার জামাতা, টেকপাড়া সোসাইটি’র সভাপতি এম. জাহেদ উল্লাহ জাহেদ সিবিএন-কে জানিয়েছেন।

শোক প্রকাশ :

কক্সবাজার শহরের সামাজিক সংগঠন টেকপাড়া সোসাইটি’র সভাপতি এম. জাহেদ উল্লাহ জাহেদ এর শ্বাশুড়ি, কক্সবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদ সড়কের ক্লিনিক্যাল ল্যাবরটরী নতুন শেভরন ভবনের সত্ত্বাধিকারী, কক্সবাজার সদর উপজেলার খুরুস্কুল ফকিরা পাড়া নিবাসী হাজী আবু তাহেরের সহধর্মিণী লায়লা বেগম এর মৃত্যুতে টেকপাড়া সোসাইটি’র নেতৃবৃন্দ গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। সোসাইটির সহ সভাপতি মোহাম্মদ আলাউদ্দিন ও মিজানুর রহমান মিজান, সাধারণ সম্পাদক শেখ আশিকুজ্জামান আশিক, সাংগঠনিক সম্পাদক ফয়সালুল আলম, সহ সাধারণ সম্পাদক জাবেদ উল্লাহ মিয়া ভাই সহ অন্যান্যরা এক শোকবার্তায় মরহুমার বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।